বিনোদন ও খেলাধুলা 

ফারুকের জয়ে আনন্দের বান ডেকেছে চলচ্চিত্র পাড়ায়

ফারুকের জয়ে আনন্দের বান ডেকেছে চলচ্চিত্র পাড়ায়

বিনোদন ডেস্ক : ঢাকাই সিনেমার কিংবদন্তি নায়ক আকবর হোসেন পাঠান ফারুক বহুল আলোচিত ঢাকা-১৭ আসনে প্রায় লক্ষাধিক ভোট বেশি পেয়ে জয়ী হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলো জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট ও ২০ দলীয় জোটের প্রার্থী ব্যারিস্টার আন্দালিব রহমান পার্থ।

নায়ক ফারুকের জয়ের আনন্দ ছড়িয়ে পড়েছে পুরো চলচ্চিত্র পাড়ায়। খুশির জোয়ারে ভাসছে চলচ্চিত্রের মানুষরা।

মিয়া ভাইয়ের জয়ের খবর পাওয়ার পর থেকেই সবাই অভিনন্দ জানাচ্ছেন তাকে। সোমবার ফেসবুকে ফারুকের সঙ্গে একটি ছবি পোস্ট করে তাকে অভিন্দন জানিয়েছেন শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খান। এখানে দেখা যাচ্ছে শিল্পী সমিতির সভাপতি মিশা সওদাগর ও সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খানকে।

জায়েদ খান বলেন, ‘আপনার বিজয়ে গর্বিত সকল চলচ্চিত্র শিল্পী’। চিত্রনায়ক ফারুকের পক্ষে বনানীর রাজপথে নেমেছিলেন চলচ্চিত্রের অনেক শিল্পী। চিত্রনায়ক রিয়াজ, ফেরদৌস, নিরব মাহফুজ আহমেদ, জায়েদ খান, ইমন, সাইমন সাদিক, জয় চৌধুরী, ড্যানি সিডাক, এস ডি রুবেলসহ অনেকে। নায়িকাদের মধ্যে ছিলেন অঞ্জনা, শাবনাজ, নিপূণ, মাহিয়া মাহি, সুইটি, রত্নাসহ নতুন পুরনো আরো অনেকেই। এখন সবাই অভিনন্দন জানাচ্ছেন তাকে।

রিয়াজ বলেন, ‘দেশের ১৮ কোটি মানুষ যেন মুক্তিযুদ্ধের বিপক্ষের শক্তিকে প্রত্যাখ্যান করেছে। বাংলাদেশের জয় হয়েছে। আমাদের সিনেমার মানুষ ফারুক ভাইয়ের জয় হয়েছে।’

ফারুকের জয়ে আবেগে আপ্লুত হয়ে নায়ক নিরব বললেন, ‘ফারুক ভাই জিতেছেন ভীষণ আনন্দিত হয়েছি। এই আনন্দ ভাষায় বলে বোঝানো সম্ভব না। মনে হচ্ছে আমিই নির্বাচনে জয়ি হয়েছি। নিজের বাবা, ভাই, চাচা এমন আত্মীয় স্বজন নির্বাচনে জয় লাভ করলে যেমন আনন্দ হয়, তেমনই আনন্দ লাগছে। অনেক অভিনন্দন ফারুক ভাইকে।’

নায়িকা নিপুণ বলেন, ‘এটা ভাবতেই খুব আনন্দ হচ্ছে যে সরাসরি চলচ্চিত্রের একজন মানুষ দেশের প্রতিনিধি হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন। আর সেটাও ফারুক ভাই। যিনি তার ক্যারিয়ারে বহুবার চলচ্চিত্রের ক্রান্তিলগ্নে নেতৃত্ব দিয়েছেন। তাকে নেতা হিসেবে পাওয়া মানে একটা সুন্দর ও সফল নেতৃত্বের অপেক্ষা করা।’

চিত্রনায়ক সাইমন বলেন, ‘মিয়া ভাই আমাদের প্রাণের মানুষ। তার জয়ের আনন্দ প্রতিটি চলচ্চিত্রকর্মীকে ছুঁয়ে গেছে। তার প্রচারে আমরা শিল্পীরা যে শ্রম দিয়েছিলাম তা সফল হয়েছে। ভোট দিতে আমি কিশোরগঞ্জে এসেছিলাম। তাই কাল তার সঙ্গে দেখা হয়নি। তবে ফোনে শুভেচ্ছা জানিয়েছি। ঢাকায় ফিরেই মিয়া ভাইয়ের সাথে দেখা করবো।’

উল্লেখ্য, নায়ক ফারুক পেয়েছেন ১ লাখ ৬৪ হাজার ৬১০ ভোট। অন্যদিকে ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে পার্থ পেয়েছেন ৩৮ হাজার ৬৩৯ ভোট। যে কোনো সংসদ নির্বাচনে রাজধানীর এই আসনটিতে চোখ থাকে সবার। গুলশান, বনানী, ঢাকা সেনানিবাস ও ভাসানটেকের কিছু অংশ নিয়ে গঠিত ঢাকার প্রাণকেন্দ্রের এই আসনে এবার বেশ কয়েকজন হেভিওয়েট প্রার্থী নির্বাচন করেছেন।

Related posts

Leave a Comment

WP2FB Auto Publish Powered By : XYZScripts.com