শিক্ষাঙ্গন 

প্রশ্নফাঁস ছাড়াই সম্পন্ন হলো ১ম দিনের এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা

প্রশ্নফাঁস ছাড়াই সম্পন্ন হলো ১ম দিনের এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা

আজ ১ এপ্রিল (সোমবার ) থেকে শুরু হয়েছে উচ্চমাধ্যমিক ও সমমানের পরীক্ষা। এ বছর পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে ১৩ লাখ ৫১ হাজার ৫০৫ শিক্ষার্থী। দেশের দুই হাজার ৫৭৯ কেন্দ্রে একযোগে এ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। এছাড়া বিদেশের আটটি কেন্দ্র থেকেও অংশ নিয়েছে ২৭৫ শিক্ষার্থী।
সূচি অনুযায়ী, আজ প্রথম দিন সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত এইচএসসি বাংলা (আবশ্যিক) প্রথম পত্র, বাংলা (আবশ্যিক) প্রথম পত্র (ডিআইবিএস) এবং আলিমে কোরআন মাজিদ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এইচএসসি ব্যবসায় ব্যবস্থাপনায় সকালে বাংলা-২ (নতুন সিলেবাস), বাংলা-২ (পুরনো সিলেবাস), বিকালে বাংলা-১ (সৃজনশীল নতুন সিলেবাস), বাংলা-১ (সৃজনশীল পুরনো সিলেবাস) এবং ডিপ্লোমা-ইন কমার্সে সকালে বাংলা-২, বিকালে বাংলা-১ (সৃজনশীল) পরীক্ষা হয়।
বিগত এসএসসি পরীক্ষার মত এবারেও প্রশ্নফাঁস ছাড়াই কড়া নিরাপত্তার মধ্যে সম্পন্ন হয়েছে এইচএসসি ও সমমানের প্রথম দিনের পরীক্ষা। বোর্ড থেকে সকাল সাড়ে নয়টার মধ্যে কেন্দ্রে প্রবেশ করার নির্দেশনা থাকায়, সকাল ৯টা থেকেই কেন্দ্রের সামনে অপেক্ষা করতে দেখা যায় পরীক্ষার্থী আর অভিভাবকদের। নির্ধারিত সময়ে কেন্দ্রের গেইট খোলা হলে কড়া নজরদারি আর তল্লাশির মাধ্যমে কেন্দ্রে প্রবেশ করানো হয় পরীক্ষার্থীদের।
প্রশ্নফাঁস ছাড়া নির্বিঘ্নে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হওয়ায় স্বস্তি প্রকাশ করেন অভিভাবকরা। বিগত বছরের ধারাবাহিকতায় আগামী পরীক্ষাগুলোও প্রশ্নফাঁস ছাড়াই অনুষ্ঠিত হওয়ার আশা রাখেন তারা।

এর আগে প্রশ্নফাঁসের অভিযোগে কয়েকজনকে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী গ্রেফতার করেছে ফেসবুক মনিটরিং এবং অন্যান্য সূত্রের মাধ্যমে। যারা ফেসবুকসহ ইন্টারনেটের মাধ্যমে গুজব ছড়াচ্ছে তাদের ওপর নজরদারি বসানো হয়েছে। দ্রুত আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী তাদের গ্রেফতার করবে।
এদিকে সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে পরীক্ষা সম্পন্ন করতে সকল অভিভাবক ও শিক্ষার্থীদের সহায়তা কামনা করেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। শিক্ষামন্ত্রী বলেন, আমরা যে সকল নির্দেশনা দিয়েছিলাম তার সবকয়টি অনুসরণ করা হয়েছে। পরীক্ষা শুরুর ২৫ মিনিট আগে প্রশ্ন খোলা হয়েছে। সারাদেশে অ্যালুমিনিয়াম ফয়েল পেপারে মোড়ানো প্রশ্নপত্র পাঠানো হয়েছে। দেশের সকল স্থানে সুষ্ঠুভাবে পরীক্ষা শুরু হয়েছে। এ পর্যন্ত দেশের কোথাও প্রশ্নফাঁসের অভিযোগ পাওয়া যায়নি। বাকি পরীক্ষাগুলোও প্রশ্নফাঁস ছাড়াই হবে।
শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী, এবার এইচএসসিতে আটটি সাধারণ বোর্ডের অধীনে ১১ লাখ ৩৮ হাজার ৭৪৭ জন, মাদ্রাসা বোর্ডের অধীনে আলিমে ৮৮ হাজার ৪৫১ জন, কারিগরি বোর্ডের অধীনে এইচএসসি বিএম-এ ১ লাখ ২৪ হাজার ২৬৪ জন এবং ডিআইবিএসে ৪৩ জন অংশ নিয়েছে। এর মধ্যে ৬ লাখ ৬৪ হাজার ৪৯৬ ছাত্র এবং ৬ লাখ ৮৭ হাজার ৯ ছাত্রী। আগামী ১১ মে পর্যন্ত চলবে তত্ত্বীয় পরীক্ষা।

Related posts

Leave a Comment

WP2FB Auto Publish Powered By : XYZScripts.com